বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৬ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
ব্রিটেন প্রবাসে ঈদ ছুটি নিয়ে ভাবনা ও আমাদের করণীয়  » «   ঈদে ছুটি নাই  » «   কমিউনিটি ও পরিবারের স্বার্থকে প্রাধান্য দিলে ঈদের ছুটি নিয়ে দ্বি-মত থাকবে না- শায়খ আব্দুল কাইয়ুম  » «   ব্রিটেনে ঈদ হলিডে : আকাঙ্ক্ষা ও বাস্তবতা  » «   দয়া নয়, ঈদের ছুটি শ্রমজীবি মুসলমানদের অধিকার  » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি নিয়ে কমিউনিটি ও মানবাধিকার নেতারা যা বলেন  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃক বন্যা দুর্গতদের চিকিৎসার্থে বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   যুক্তরাজ্যে ঈদের ছুটির দাবীতে  আলতাব আলী পার্কে সমাবেশ অনুষ্ঠিত  » «   পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে স্পেনে দূতাবাসের বিশেষ আয়োজন  » «   পদ্মা সেতুর স্মারক নোট বাজারে আসবে রবিবার  » «   পদ্মা সেতুর জন্য অভিনন্দন বিশ্বব্যাংক প্রতিনিধির  » «   অদম্য বাংলাদেশ, খুলল পদ্মার দ্বার  » «   আছে শুধু ভালোবাসা, দিয়ে গেলাম তাই: প্রধানমন্ত্রী  » «   রেমিটেন্স প্রেরণে উদ্বুদ্ধকরণে মাদ্রিদে মতবিনিময় সভা’ অনুষ্ঠিত  » «   বিশ্বনাথে মায়ের কোল থেকে ভেসে গেল শিশু, ৫ জনের মৃত্যু  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


বিয়ানীবাজারের প্রবীণ শিক্ষক মো. আব্দুল  হাসিবের ইন্তেকাল
শোক-শ্রদ্ধায় শেষ বিদায়



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

সিলেট বিয়ানীবাজারের প্রবীন শিক্ষক মো. আব্দুল  হাসিব ইন্তেকাল করেছেন( ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি উপজেলার অন্যতম ঐতিহ্যবাহি বিদ্যাপীঠ জলঢুপ উচ্চ বিদ্যালয় থেকে  প্রধান শিক্ষক হিসাবে অবসর নেন। জলঢুপ উচ্চ বিদ্যলয়ে টানা ৩৬ বৎসর শিক্ষকতা করেন তিনি।

বেশ কয়েকদিন থেকে তিনি অসুস্থ ছিলেন। গত ২২ ফেব্রুয়ারি তাকে সিলেটের মাউন্ট এডোরা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।  শারীরিক অবস্থা অপরিবর্তিত থাকলে শনিবার রাতে তার স্বজনরা বাড়িতে নিয়ে আসেন।রোববার (২০ মার্চ) সকাল ৭টার দিকে তিনি  নিজ বাড়িতে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন।

মরহুম মো. আব্দুল হাছিবের  জানাজা রবিবার বাদ আছর বিয়ানীবাজারের মুল্লাপুর ইউনিয়নের আব্দুল্লাহপুর শাহী ঈদগাহ মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, সন্তান, আত্মীয় স্বজন ও অনেক শুভাকাঙ্খি রেখে গেছেন। তার অসংখ্য শিক্ষার্থী দেশে-বিদেশে বিভিন্ন পেশায় থেকে সমাজে আলো ছড়াচ্ছেন ।

তার পিতার নাম মরহুম মো. আরজদ আলী ও মাতার নাম ফাতিরা বিবি । দুই ভাই ও চার বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন সবার ছোট । ১৯৪৯ সালে ১ অক্টোবর  জন্ম নেয়া  এই শিক্ষক নির্মল  প্রকৃতি ঘেরা তার বাগিছা বাড়ীতে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন।

১৯৭১ সালে পাতন আবদুল্লাপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রথম শিক্ষকতা শুরু করেন । ১৯৭৩ সালে ঐতিহ্যবাহী জলঢুপ উচ্চ বিদ্যালয়ে বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক হিসাবে  যোগদান করেন । এরপর ১৯৮৪ সালে কুমিল্লা টিচার্স টেনিং কলেজ থেকে বিএড পাশ করে সিনিয়র শিক্ষকের পদ মর্যাদা অর্জন করেন। ১৯৯৩ সাল থেকে ১৯৯৯ সহকারী প্রধান শিক্ষক ও ১৯৯৯ থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব পালন করেন  অবসরে  যান গুণী এই শিক্ষক । জলঢুপ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের কাছে তিনি ‘হাছিব স্যার’ নামেই পরিচিত।

এদিকে তার মৃত্যুর সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে দেশ বিদেশে অসংখ্য শিক্ষার্থী সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রিয় স্যারের স্মৃতিচারণ করে আর আত্নার শান্তি কামনা করে সকলের কাছে দোয়া কামনা করছেন।

শোক প্রকাশ :

গুণী প্রবীন শিক্ষক মো. আব্দুল হাছিবের  মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছে  যুক্তরাজ্য থেকে প্রচারিত অনলাইন গণমাধ্যম ও পোর্টাল ৫২বাংলা। শোক বার্তায় মানুষ গড়ার কারিগর সর্বজন শ্রদ্ধেয়  এই শিক্ষকের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে তার পরকালীন শান্তি কামনা করে সকলের দোয়া কামনা করেছে। এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছে।

 

 

 

 


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন