সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ক্যারিবিয়দের বিপক্ষে বিশাল জয় নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের পঞ্চম স্থানে বাংলাদেশ  » «   রিয়াদে জালালাবাদ এসোসিয়েশনের অভিষেক ও ঈদ পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠিত  » «   টাইগার ভক্তরা টনটনে নতুন আশায়  » «   সৌদিতে প্রতারণার নতুন ফাঁদ: ফ্রি ভিসাই কন্ট্রাক্ট ভিসা  » «   ফেনী পুলিশের হাতে তুলে দেয়া হবে মোয়াজ্জেমকে  » «   মাদ্রিদে ভালিয়েন্তে বাংলা’র ঈদ পূনর্মিলনীতে প্রবাসীদের মিলনমেলা  » «   কুলাউড়ার এক ঝাঁক তরুণ অনলাইন এক্টিভিস্টদের আত্মপ্রকাশ  » «   ভারত-পাকিস্তান : সমর্থকদের উত্তেজনাও তুঙ্গে  » «   জিপিএ ৫ নয়, এবার হতে সিজিপিএ ৪  » «   আমিরাতে বাংলাদেশ বিজনেস ফেরামের ঈদ পুনর্মিলনী  » «   বৃষ্টিভেজা ক্রিকেট বিশ্বকাপ নিয়ে হাস্যরস  » «   ওসমানী হাসপাতাল থেকে হৃদরোগ চিকিৎসার যন্ত্র ফিরিয়ে নেওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন  » «   স্কুলবাস সার্ভিস চালু করছে সিলেট সিটি করপোরেশন  » «   ব্রিটেনে রেষ্টুরেন্টে ওয়ার্ক পারর্মিটের সুযোগ এখনও সৃষ্টি হয়নি  » «   মোবাইলে ১০০ টাকার কথা বললে কর দিতে হবে ২৭ টাকা  » «  

স্কুলবাস সার্ভিস চালু করছে সিলেট সিটি করপোরেশন



সিলেট নগর এলাকার স্কুলের ছাত্রছাত্রীদের আনা নেওয়ার জন্য স্কুলবাস চালু করার উদ্যোগ নিয়েছে সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক)। প্রাথমিক ভাবে সিলেট সিটি করপোরেশন পরিচালিত দুটি বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের পরিবহণের জন্য তিনটি বাস চালু করা হচ্ছে। এ উদ্যোগে সফলতা আসলে নগরীর অন্য স্কুলের শিক্ষার্থীদের জন্যও এই সেবা চালু হবে বলে জানিয়েছে সিসিক কর্তৃপক্ষ।

সিলেট নগরীর দিনদিন বাড়ছে যানজট। এই যানজট আরও বাড়িয়ে তুলছে নগরীর বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আনা নেওয়ার জন্য ব্যবহৃত ব্যক্তিগত গাড়ি। তাই নগরীর বড় ও নামী স্কুলগুলোর সামনে স্কুল শুরু ও ছুটির সময় লেগে থাকে অসহনীয় যানজট। যানজট কমিয়ে আনা ও স্কুল শিক্ষার্থী দুর্ভোগ লাঘবে নগরীতে স্কুল বাস সার্ভিস চালুর উদ্যোগ নিয়েছে সিটি করপোরেশন।

সিসিক সূত্রে জানা যায়, স্কুল শুরুর আগে ও ছুটির পর শিক্ষার্থীদের আনা নেওয়া করবে সিসিকের বাস। প্রাথমিক অবস্থায় এ জন্য ২৫ সিটের ৩টি বাস চালু করা হচ্ছে।

সিটি করপোরেশন সূত্রে জানা যায়, প্রাথমিকভাবে সিলেট সিটি করপোরেশন পরিচালিত বিরেশচন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয় ও চারাদিঘিরপাড় উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আনা নেওয়ার কাজে এই বাস ব্যবহার করা হবে। এই দুই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বিনা ভাড়ায় যাতায়াত করতে পারবে। তবে বাস চলাচলের রুট এখনও চূড়ান্ত হয়নি বলে জানান সিসিকের কর্মকর্তারা। ট্রাফিক পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সাথে শীঘ্রই সার্বিক বিষয়ে আলোচনা করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

প্রাথমিক উদ্যোগে সফলতা আসলে নগরীর অন্য স্কুলগুলোর জন্যও এ সার্ভিস চালু করা হবে বলে জানায় নগর কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, নগরের স্কুলগামী শিক্ষার্থীদের যাতায়াতের সুবিধার্থে সিটি করপোরেশন থেকে স্কুলবাস সার্ভিস চালু করা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে সিটি করপোরেশেন পরিচালিত দুটি বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের জন্য বাস সার্ভিস চালু হচ্ছে। পরবর্তীতে চাহিদা অনুযায়ী আরও কয়েকটি বাস চালুর পরিকল্পনা আছে। এ ব্যাপারে ট্রাফিক পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা করে সপ্তাহখানেকের ভিতরে এই স্কুল বাস চালু করা হবে।