শনিবার, ১৮ মে ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
মানুষের মৃত্যূ -পূর্ববর্তী শেষ দিনগুলোর প্রস্তুতি যেমন হওয়া উচিত  » «   ব্যারিস্টার সায়েফ উদ্দিন খালেদ টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের নতুন স্পীকার নির্বাচিত  » «   কানাডায় সিলেটের  কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলমকে সংবর্ধনা ও আশার আলো  » «   টাওয়ার হ্যামলেটসের নতুন লেজার সার্ভিস ‘বি ওয়েল’ এর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন মেয়র লুৎফুর রহমান  » «   প্রতিমন্ত্রী শফিকুর রহমান চৌধুরী এমপির সাথে বিসিএর মতবিনিময়  » «   সৈয়দ আফসার উদ্দিন এমবিই‘র ইন্তেকাল  » «   ছাত্রলীগের উদ্যোগে বিয়ানীবাজারে পথচারী ও রোগীদের মধ্যে ইফতার উপহার  » «   ইস্টহ্যান্ডসের রামাদান ফুড প্যাক ডেলিভারী সম্পন্ন  » «   বিসিএ রেস্টুরেন্ট কর্মীদের মানসিক স্বাস্থ্য সুরক্ষায় এনএইচএস এর ‘টকিং থেরাপিস’ সার্ভিস ক্যাম্পেইন করবে  » «   গ্রেটার বড়লেখা এসোশিয়েশন ইউকে নতুন প্রজন্মদের নিয়ে কাজ করবে  » «   স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে বিয়ানীবাজার প্রেসক্লাবের দোয়া ও ইফতার মাহফিল  » «   কানাডা যাত্রায়  ইমিগ্রেশন বিড়ম্বনা এড়াতে সচেতন হোন  » «   ব্রিটিশ রাজবধূ কেট মিডলটন ক্যানসারে আক্রান্ত  » «   যুদ্ধ বিধ্বস্ত গাজাবাসীদের সাহায্যার্থে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই ইন দ্য ইউকের অনুদান  » «   বড়লেখায় পাহাড়ি রাস্তা সম্প্রসারণে বেরিয়ে এলো শিলাখণ্ড  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন

দাপুটে ব্যাটিং নৈপুণ্যে ইতিহাস রচনা করলো বাংলাদেশ



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

ওয়ানডে ক্রিকেটে প্রথমবারের মতো শিরোপা জিতল বাংলাদেশ। প্রায় হেরে যাওয়া ম্যাচে মাত্র ২৪ বলে ৫২ রানের অবিশ্বাস্য ইনিংস খেলে মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত এ জয় উপহার দেন।

শেষ দিকে বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিল ২৪ বলে ৩৯রান। ঠিক ওই সময় ঝড় তুলেন তরুণ এ অলরাউন্ডার। দলের জয়ে ২টি চার ও ৫টি ছক্কায় ৫২ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলেন সৈকত। মোসাদ্দেক-সৌম্যর জোড়া ফিফটি গড়া ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৫ উইকেটে পরাজিত করে বাংলাদেশ।

ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে প্রথমে ব্যাট করে বৃষ্টির বাগড়ায় পড়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২৪ ওভারে সংগ্রহ করে ১৫২/১ রান। বৃষ্টি আইনে বাংলাদেশের টার্গেট দাঁড়ায় ২৪ ওভারে ২১০রান।

এমন কঠিন সমীকরণ তাড়া করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা করেন দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকার। উদ্বোধনী জুটিতে তারা ৫.৩ ওভারে ৫৯ রান যোগ করেন।

এরপর মাত্র ১ রানের ব্যবধানে ২ উইকেট হারায় বাংলাদেশ দল। ১৩ বলে ১৮ রান করে ফেরেন তামিম। তার বিদায়ের পর ব্যাটিংয়ে নেমেই আউট হন সাব্বির রহমান রুম্মন।

এরপর মুশফিকুর রহিমকে সঙ্গে নিয়ে ইনিংস মেরামতের চেষ্টা করেন দুর্দান্ত খেলে যাওয়া সৌম্য সরকার। তৃতীয় উইকেটে তাড়া ৪৯ রান যোগ করেন।

নিজের খেলা ২৭তম বলে সিঙ্গেল নেয়ার মধ্য দিয়ে ক্যারিয়ারের ৪৪তম ম্যাচে ১০ ফিফটি গড়েন সৌম্য সরকার। একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে যাওয়া সৌম্য ফেরেন ৪১ বলে ৯টি চার ও তিনটি ছক্কায় ৬৬ রান করে।

দলীয় ১৩৪ রানে এলবিডব্লিউ হয়ে ফেরেন মুশফিকুর রহিম। তার আগে ২২ বলে ৩৬ রান করেন জাতীয় দলের এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান।

পাঁচ নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নামা মোহাম্মদ মিঠুনও মুশফিকের মতো একই ভাবে আউট হন। ফ্যাবিয়ান অ্যালানের বলে বিভ্রান্ত হওয়ার আগে ১৪ বলে ১৭ রান করেন মিঠুন।

ইনিংসের শেষ দিকে রান রেট বেড়ে যাওয়ায় একেরপর এক বাউন্ডারি হাঁকান সৈকত। তার অনবদ্য ব্যাটিংয়ে প্রথম শিরোপার স্বাদ পায় বাংলাদেশ দল।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন