বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৬ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
ঈদে ছুটি নাই  » «   কমিউনিটি ও পরিবারের স্বার্থকে প্রাধান্য দিলে ঈদের ছুটি নিয়ে দ্বি-মত থাকবে না- শায়খ আব্দুল কাইয়ুম  » «   ব্রিটেনে ঈদ হলিডে : আকাঙ্ক্ষা ও বাস্তবতা  » «   দয়া নয়, ঈদের ছুটি শ্রমজীবি মুসলমানদের অধিকার  » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি নিয়ে কমিউনিটি ও মানবাধিকার নেতারা যা বলেন  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃক বন্যা দুর্গতদের চিকিৎসার্থে বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   যুক্তরাজ্যে ঈদের ছুটির দাবীতে  আলতাব আলী পার্কে সমাবেশ অনুষ্ঠিত  » «   পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে স্পেনে দূতাবাসের বিশেষ আয়োজন  » «   পদ্মা সেতুর স্মারক নোট বাজারে আসবে রবিবার  » «   পদ্মা সেতুর জন্য অভিনন্দন বিশ্বব্যাংক প্রতিনিধির  » «   অদম্য বাংলাদেশ, খুলল পদ্মার দ্বার  » «   আছে শুধু ভালোবাসা, দিয়ে গেলাম তাই: প্রধানমন্ত্রী  » «   রেমিটেন্স প্রেরণে উদ্বুদ্ধকরণে মাদ্রিদে মতবিনিময় সভা’ অনুষ্ঠিত  » «   বিশ্বনাথে মায়ের কোল থেকে ভেসে গেল শিশু, ৫ জনের মৃত্যু  » «   লন্ডনে বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র ইউকের বিশ বছরপূর্তি উদযাপন  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


নর্থওয়েষ্ট ইংল্যান্ডে কারা হচ্ছেন কাউন্সিলার
ওল্ডহ্যাম-মানচেষ্টার-রচডেল-হাইডে ব্যাপকহারে বাঙালীদের অংশ গ্রহন



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

 

আগামী ২মে অনুষ্ঠিত হবে ব্রিটেনের স্থানীয় নির্বাচন। খুব স্বাভাবিকভাবেই এ নিয়ে সব জায়গায় চলছে আলোচনা। গ্রেট ব্রিটেনের নর্থ ওয়েষ্ট কিংবা ল্যাংকাশায়ারের স্থানীয় নির্বাচন নিয়ে এশিয়ান বংশোদ্ভুতদের মধ্যে এ নিয়ে থাকে বাড়তি উত্তেজনা। এবারের নির্বাচনেও ব্যাপক হারে বাংলাদেশী বংশোদ্ভুতদের অংশ গ্রহনে সৃষ্টি হয়েছে জমজমাট আমেজ। বিশেষ করে বাঙ্গালী অধ্যুষিত এলাকা সমূহে নির্বাচনী প্রচারণা জমে উঠেছে।

অন্যান্য বার ওল্ডহ্যাম, ম্যানচেষ্টার, রচডেল, হাইড কিংবা বার্ণলী প্রভৃতি শহরগুলোতে যেমন বাংলাদেশী বংশদ্ভোত কাউন্সিলার প্রার্থীদের প্রচারনা দেখা যেতো, এবারও তার ব্যতিক্রম নেই। মূলধারার রাজনীতিতে বাঙালীদের অংশ গ্রহন আনুপাতিক হারে বেড়ে চলেছে। এবছরও নতুনদের পদচারনায মুখরিত হয়ে উঠেছে ওল্ডহ্যাম-মানচেষ্টার-রচডেল-ট্ইমসাইড কাউন্সিল।

২০১২ সালে ম্যানচেষ্টার সিটি কাউন্সিলে তিনজন প্রার্থী লেবার দল থেকে প্রতিদ্বন্ধিতা করে বিজয়ী হয়ে ছিলেন, এবারও ম্যানচেষ্টারের রুশম ওয়ার্ড থেকে বর্তমান কাউন্সিলার আহমদ আলী এবং গর্টন-আবে হে ওয়ার্ড থেকে কাউন্সিলার আফিয়া কামাল লেবার প্রার্থী হিসেবে পুনরায় প্রতিদ্বন্ধিতায় আছেন।

নর্থওয়েষ্টের বাঙালী ঘনবসতি এলাকা ওল্ডহ্যামের কোল্ডহাস্ট ওয়ার্ডকে ঘিরে সরব আলোচনা থাকে সবসময়ই। এ ওয়ার্ডে চারজন প্রার্থী বাঙালীদের মাঝ থেকে প্রতিদ্বন্ধীতায় নেমেছেন। যার ফলে এ ওয়ার্ডটিকে নিয়ে আলোচনা সর্বত্র। লেবার দলের হয়ে এবার নতুন মুখ এবং ওল্ডহাম কাউন্সিলে প্রথম বারের মতো বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত মহিলা রুজি সুরজান কাউন্সিলার হিসেবে প্রার্থী হয়েছেন। অন্যদিকে সাবেক লেবার দলীয় এবং বর্তমান কাউন্সিলার মন্তাজ আলী আজাদ এবছর স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন, যা নিয়ে সর্বত্র আলোচনা-সমালোচনা চলছে। সুতরাং খুব স্বাভাবিকভাবেই এ নিয়ে কিছুটা হলেও বেকায়দায় আছেন লেবার দলীয় প্রার্থী রুজি সুরজান । স্বতন্ত্র প্রার্থী কাউন্সিলার মন্তাজ আলী আজাদ  ব্যাপক প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন এবং তাঁর প্রত্যাশা কোল্ডহাস্টের জনগণ তাঁকেই বেছে নিবে এবং তিনিই বিজয়ী হবেন। লেবার পার্টির ঘাটি হিসেবে পরিচিত এই ওয়ার্ডে শেষ পর্যন্ত নাটকীয় কোন পরিবর্তন হলে লেবার দলকে হতাশ হতে হবে। অন্য কেউ বিজয় ছিনিয়ে নিলে আসলে বিস্মিত হতেই হবে ওল্ডহ্যামের এই এলাকার বাঙালীদের। আর সেজন্যেই ওল্ডহ্যামের বাঙালী কমিউনিটির সজাগ দৃষ্টি এ ওয়ার্ডটিতে।

কিন্তু দৃশ্যপট পাল্টে এরই মধ্যে এই ওয়ার্ডে কনজারভেটিব পাটি থেকে সম্ভাব্য প্রার্থী হওয়ার ঘোষনা করেছেন শাহিদ মিয়া। জনসেবা পত্রিকার সম্পাদক হিসেবে পরিচিত এই সাংবাদিক জোরে-সোরে নির্বাচনী প্রচারনাও চালাচ্ছেন।  এছাড়াও বিগত বিভিন্ন সময়ে এ ওয়ার্ডে লিভারেল ডেমোক্রেট থেকে নিয়মিত প্রার্থী দিলেও তেমন সুবিধা করতে পারেনি। কিন্তু এবছর কমিউনিটির অত্যন্ত পরিচিত মুখ কুতুব উদ্দিন লিবডেম প্রার্থী হয়ে নির্বাচনী উত্তেজনায় যোগ করেছেন এক ভিন্ন আমেজ। যার ফলে ত্রিমুখী নির্বাচনী লড়াইর হওয়ার সম্ভাবনা বেশী বলে মনে করেছেন এ ওয়ার্ডের ভোটাররা।

ওল্ডহামের অন্যতম বাঙালী অধ্যুষিত চাডারটন নর্থ ওয়ার্ড থেকে লেবার পার্টির প্রার্থী হিসেবে পুনরায় মনোনয়ন পেয়েছেন বর্তমান কাউন্সিলার মোহন আলী। এছাড়াও এ ওয়ার্ড থেকে অপর বাংলাদেশী বাঙালী প্রার্থী রিয়াজ আলম কনজারভেটিব পার্টি থেকে নির্বাচন করছেন। ইতিমধ্যেই তিনি ব্যাপক প্রচারণাও চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে এ ওয়ার্ডের ভোটারদের অনেকেই মনে করেন কাউন্সিলার হিসেবে মোহন আলী অত্র এলাকার জনগণের সাথে নীবিড় সম্পর্ক রেখে চলেছেন। বৃহত্তর চাডারটন এরিয়ার আরো একটি ওয়ার্ড সেন্ট্রাল চাডারটন থেকে কনজারভেটিব প্রার্থী হিসেবে এবারও প্রতিদ্বন্দিতায় নেমেছেন কমিউনিটির পরিচিত মুখ সাংবাদিক মোহাম্মদ শাহজাহান। যদিও এওয়ার্ডে শ্বেতাঙ্গ ভোটারদের সংখ্যাধিক্য তারপরও তিনি আশান্নিত জনগণ তাকে বেঁচে নিবে। এছাড়াও ওল্ডহাম কাউন্সিলের ওয়ারন্যাথ ওয়ার্ড থেকে প্রথমবারের মতো গ্রীন পার্টি থেকে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন তরুণ সমাজ সেবক ইরফাত শাহজাহান। তিনিও অত্র ওয়ার্ডের বাঙালী কমিউনিটির সমর্থন আশা করছেন।

রচডেল কাউন্সিলের সেন্ট্রাল ওয়ার্ড থেকে এবারও লেবার দলীয় প্রার্থী হিসেবে বর্তমান কাউন্সিলার আলী আহমেদ এবং নরডেন ওয়ার্ডে লেবারপার্টি থেকে প্রথম বারের মতো প্রার্থী হয়েছেন বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব শওকত আলী।

অন্যদিকে টেমসাইড কাউন্সিলের হাইড-ওয়ারন্যাথ ওয়ার্ডে লেবার পার্টি থেকে মিসেস শিবলী আলম এই প্রথমবারের মত বাঙালী মহিলা প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। তিনি আশা করছেন ওয়ার্ডের জনগণ তাঁকেই নির্বাচিত করবে।

নির্বাচনী ফলাফলে কি হবে তা আমাদের ছেড়ে দিতে হবে ২ মে‘র ভোটারদের পছন্দ অপছন্দের উপর। কিন্তু যে ব্যাপারটা এবারের নির্বাচনে দৃষ্টি গোচর করেছে, তাহলো তুলনা মূলক ভাবে এখনও কম সংখ্যক বাঙালিদের প্রার্থী হওয়া এই নির্বাচনে। কমিউনিটির সচেতন নাগরিকদের আহবান, নতুন প্রজন্ম কে আরও বেশী উৎসাহিত করার সময় এসেছে। বাংলাদেশী বংশদ্ভোত যারা মূল চালিকায় আছেন, তাদের আরও বেশী উদ্যোগী হতে হবে। মূলধারার রাজনীতিতে বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত তরুনদের জায়গা করে দিতে। স্থানীয় প্রশাসনসহ নীতিনির্ধারনের জায়গায় মেধাবী তরুনদের স্থান করে দেয়ার সুযোগ সৃষ্ঠি করতে হবে। আর সেই দায়ীত্বগুলো স্বাভাবিকভাবেই বর্তায় বর্তমান রাজনৈতিক নেতাদের উপর।রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন, বর্তমান কাউন্সিলাররা তাদের স্ব স্ব অবস্থান ধরে রেখে আবারো বিজয়ী হবেন, এবং স্থানীয় বাঙ্গালিদের প্রত্যাশা, আরো কিছু নতুন মুখ নির্বাচিত হয়ে স্থানীয় কাউন্সিলগুলোতে বাংলাদেশী বংশদ্ভোত জনপ্রতিনিধিদের প্রতিনিধিত্ব বৃদ্ধি করবেন।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন