সোমবার, ২৭ জুন ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
যুক্তরাজ্যে ঈদের ছুটির দাবীতে  আলতাব আলী পার্কে সমাবেশ অনুষ্ঠিত  » «   পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে স্পেনে দূতাবাসের বিশেষ আয়োজন  » «   পদ্মা সেতুর স্মারক নোট বাজারে আসবে রবিবার  » «   পদ্মা সেতুর জন্য অভিনন্দন বিশ্বব্যাংক প্রতিনিধির  » «   অদম্য বাংলাদেশ, খুলল পদ্মার দ্বার  » «   আছে শুধু ভালোবাসা, দিয়ে গেলাম তাই: প্রধানমন্ত্রী  » «   রেমিটেন্স প্রেরণে উদ্বুদ্ধকরণে মাদ্রিদে মতবিনিময় সভা’ অনুষ্ঠিত  » «   বিশ্বনাথে মায়ের কোল থেকে ভেসে গেল শিশু, ৫ জনের মৃত্যু  » «   লন্ডনে বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র ইউকের বিশ বছরপূর্তি উদযাপন  » «   মধ্যপ্রাচ্যের প্রতিবাদ এবং সাধারণ জনগণ  » «   স্পেনে ঢাকা ফ্রুতাস (Frutas) এর ১৬ বছর পূর্তি উৎসব অনুষ্ঠিত  » «   সিলেটে বন্যা : বৃষ্টি হয়েছে নদ-নদীর পানি কমেছে  » «   সিলেটে রানওয়েতে বন্যার পানি, বন্ধ বিমানের ফ্লাইট  » «   যুক্তরাজ্যে ঈদে ছুটির দাবীতে আলতাব আলী পার্কে সমাবেশ ২২শে জুন  » «   বিয়ানীবাজারে বিদ্রোহী প্রার্থী ও গোলাপগন্জে নৌকা বিজয়ী  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


আজ বুধবার সিলেটে ঐক্যফ্রন্টের জনসভা
শুরুতেই ধরপাকড়



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

সিলেটে বিএনপির ১০ নেতা-কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত সাড়ে আটটার দিকে জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরীর বাসায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে নেতা-কর্মীদের আটক করা হয়।

বিএনপির পক্ষ থেকে রাতে বলা হয়েছে, আগামীকাল বুধবার ঐক্যফ্রন্টের কর্মসূচি নিয়ে ওই বাসায় স্থানীয় বিএনপি বৈঠকে বসেছিল।

আটক ব্যক্তিদের মধ্যে দুজনের নাম জানা গেছে। তাঁরা হলেন, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সিলেট মহানগর বিএনপির সাবেক আহ্বায়ক শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী এবং সিলেট মহানগর বিএনপির সহসভাপতি ও সিলেট সিটি করপোরেশনের ৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর রেজাউল হাসান কয়েস লোদী। জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ জানিয়েছেন, আটক বাকি আটজন স্থানীয় বিএনপির নেতা-কর্মী।

সিলেট মহানগর বিএনপির এক নেতা জানিয়েছেন, ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ সফল করতে জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামীমের বাসায় কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে বৈঠক চলাকালে পুলিশ অভিযান চালায়। এ সময় পুলিশ ছাত্রদল, যুবলদলসহ বিএনপির প্রায় ১৫ জন নেতাকর্মীকে আটক করে নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে মহানগর পুলিশের সিনিয়র সহকারী কমিশনার জানিয়েছেন, পুলিশ বিএনপির কোনো নেতার বাসায় অভিযান চালায়নি। এ তথ্যটি সঠিক নয়। এমনকি পুলিশ কাউকে আটকও করেনি। তবে নগরের সোবহানীঘাট ও আশপাশ এলাকা থেকে সন্দেহভাজনভাবে চলাচলকালে চারজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আনা হয়েছে। এরা বিএনপি করে কি না তাও জানি না।

এদিকে বুধবারের কর্মসূচি উপলক্ষে গতকাল মঙ্গলবার বিকেলেই জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষস্থানীয় কয়েজন নেতা সিলেটে পৌছেন। তাঁদের মধ্য ড. কামাল হোসেন, সুলতান মনসুর, ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, গয়েশ্বর চন্দ্র রায় প্রমুখ রয়েছেন। এর মধ্যে গতরাত আটটার দিকে সুলতান মনসুরকে নিয়ে শাহ জালাল (রহ.) মাজার জিয়ারত করেন ড. কামাল হোসেন। এ সময় সেখানে বিএনপির নেতা-কর্মীসহ ঐক্যফ্রন্টের বিভিন্ন নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন