বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
কেসি সলিসিটর্সের দশক পূর্তি উদযাপন  » «   বঙ্গবন্ধু স্কলারশিপ আন্তর্জাতিক অঙ্গণে বাংলাদেশের উন্নয়নের প্রতিচ্ছবি  » «   লীলা নাগের স্মৃতি রক্ষায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় উদ্যোগ নেবে  » «   ফুসফুস-ক্যান্সার পরীক্ষার জন্য মাইল এন্ড লেজার সেন্টারে স্থাপন করা হচ্ছে বিশেষ ‘স্ক্রিনিং মেশিন’  » «   অলি-মিঠু-টিপু প্যানেলের পরিচিতি ও ইশতেহার ঘোষণা  » «   ২০ নভেম্বর লন্ডনের রয়েল রিজেন্সিতে ৫ম বেঙ্গলী ওয়েডিং ফেয়ার  » «   একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির যুক্তরাজ্য শাখা গঠিত  » «   টি আলী স্যার ফাউন্ডেশন সম্মাননা পেলেন সিলেটের ২৪গুণী শিক্ষক  » «   নওয়াগ্রাম প্রগতি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ফুল, ফল ও ঔষধি বৃক্ষরোপণ  » «   আলোকিত মানুষ শিক্ষক মো. সমছুল ইসলাম এর ৬ষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকী  » «   সিলেটের বিয়ানীবাজারে একটি পরিত্যক্ত কূপে তাজা গ্যাসের মজুদ আবিষ্কৃত  » «   বাংলাদেশী কারী  ব্রিটেনের প্রবৃত্তি ও খাবার সংস্কৃতিতে অনন্য  অবদান রাখছে  » «   পুরুষতান্ত্রিক সমাজ ব্যবস্থায় নারীবাদের প্রতিবন্ধকতা  » «   রিষি সুনাক এশিয়ান বংশদ্ভোত, কনজারভেটিভ এবং ধনীদের বন্ধু  » «   গোলাপগঞ্জ প্রেসক্লাব নিয়ে বিভ্রান্তি সৃষ্টিকারীদের ব্যাপারে সতর্ক থাকার আহবান  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


পুলিশের শরণাপন্ন হওয়ায় অসহায় সাধু’র  পা ভেঙ্গে দিয়েছে দুষ্কৃতিকারী



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

”সরকার কেন আমাকে এই জমি দিয়ে যন্ত্রনা দিয়েছে ? আমি কি তাই চেয়েছিলাম ? এই জমির দন্ধের আগুনে পুড়ে ছারখার হয়ে যাচ্ছি, সরকারের জমি সরকার ফিরিয়ে নিয়ে যাক, আমাকে মুক্তি দিক, আমি আমার তিন প্রতিবন্ধী সন্তান নিয়ে বনে জঙ্গলে ঘুরে ঘুরে বাকি জীবন কাটিয়ে দেব, তবুও আর সহ্য করতে পারছিনা। ওরা আমাকে বার বার  মারে, রক্তাক্ত করে, আমি কোন বিচার পাইনা ?” এভাবে কথা গুলো বলেছিলেন কলমাকান্দা উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাতিমুঞ্জি গ্রামে অসহায় শ্রীদাম পাল সাধু।

জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে নেত্রকোণা পুলিশ সুপার মহোদয়ের শরণাপন্ন হওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে কলমাকান্দা সদর ইউনিয়নের পাতিমুঞ্জি গ্রামে শ্রীদাম পাল সাধু’র (৭৫) ওপর  অতর্কিত হামলা চালিয়ে  রক্তাক্ত জখম করে ও তার ডান পা ভেঙে দিয়েছেন একই গ্রামের ইসমাঈল নামে এক ব্যক্তি।

এ ঘটনাটি গত শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) সকালে উপজেলার কলমাকান্দা উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাতিমুঞ্জি গ্রামে বাকলা নদীর পাড়ে ঘটে। ওই দিন রাতে কলমাকান্দা  থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

স্থানীয় ও ভুক্তভোগী পরিবারের বরাত দিয়ে জানা গেছে,  প্রায় ২০ বছর ধরে অসহায় এক সংখ্যালঘু শ্রীদাম পাল সাধু (৭৫) প্রতিবেশি মো. ইসমাইল মিয়া , মো. আ: রশিদ ,ইন্নুছ আলী গংদের কাছে মানসিক ও শারীরিক ভাবে নির্যাতিত হয়ে আসছে।

কলমাকান্দা উপজেলার  পাতিমুঞ্জি মৌজাস্থ ০১ নং খতিয়ানের সাবেক ৬৩/৬৪ হাল ৫৭/৭৬৪ দাগে. ৬০ শতাংশ জমি ২০০০ সালে সরকার দলিলমূলে শ্রীদাম পাল সাধুকে  চিরস্থায়ী বন্ধোবস্ত দেন । ওই ভূমির নকশা অনুযায়ী সীমানা নির্ধারণ পূর্বক দখল বুঝিয়ে দেন। এর পর থেকে তিনি ভোগ দখল করে আসছেন।

কিন্তু ওই গ্রামের প্রভাবশালী প্রতিবেশি ইসমাঈল গংরা উক্ত জমি থেকে সাধুকে উচ্ছেদ করে বেদখল করার লক্ষ্যে প্রায় প্রতিদিন ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়ে অহিংস্র মনোবৃত্তি নিয়া সাধু ও তার পরিবারকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে মারপিট করে আসছে এই দুষ্কৃতিকারীরা। যতবার এমন পরিস্থিতির স্বীকার হয়, ততবার সাধু তার স্বজাতির কাছে আশ্রয় চায়। কিন্তু তার স্বজাতিরা নীরব নিশ্চুপ থাকে, ওদের ভয়ে মুখ খুলেন না।

এমন অবস্থায় অসহায় সাধু আইনের আশ্রয় নেয় । বিজ্ঞ আদালতে একটি মোকদ্দমা দায়ের করে। আদালত ২০১৫ সালে শ্রীদাম পাল সাধুর নামে রায় প্রদান করে। আদালতের সেই রায় প্রদান করায় অত্যাচারীরা আরও অত্যাচারের মাত্রা বাড়িয়ে দেয় অসহায় সাধুর প্রতি।

শ্রীদাম পাল সাধু তার তিন প্রতিবন্ধী কন্যা সন্তান পরিবার নিয়ে নীরবে জীবন যাপন করে আসছেন। কিন্তু এই নীরবতা থেকেও রক্ষা পাচ্ছেন না। প্রতিনিয়ত হুমকি দেয়, মারতে আসে, জায়গা ছেড়ে দেওয়ার জন্য ভয় দেখায়, অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ দেয়, এলাকা তথা দেশ ছেড়ে চলে যেতে হবে এমন পরিস্থিতির শিকার এখন সাধু ।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন