শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
কারী ইন্ড্রাস্টির সংকট মোকাবেলায় দরকার সমন্বিত উদ্যোগ  » «   বিবিসি প্রকাশ করেছে উইঘুর নির্যাতন নিয়ে চাঞ্চল্যকর তথ্য  » «   মাদ্রিদে বাংলাদেশ দূতাবাসে বাংলা নববর্ষ উদযাপন  » «   মাঙ্কিপক্স সংক্রমণ আরও ২ দেশে: বেলজিয়ামে ২১ দিনের কোয়ারেন্টিন ঘোষণা  » «   শুধুই নারীদের পরিচালনায় প্রথম সৌদি আরবের আকাশে উড়ল ব্যতিক্রমী ফ্লাইট  » «   গোলাপগন্জে চেয়ারম্যান প্রার্থী এলিম চৌধুরী’র মতবিনিময়  » «   দুদকের মামলায় হাজী সেলিম কারাগারে  » «   নিষেধাজ্ঞার মধ্যেও রাশিয়ার মুদ্রা রুবল’র উত্থান  » «   কারী শিল্পের সংকট মোকাবেলায় সিবিআই প্রেসিডেন্টের কাছে  বিসিএ’র পাঁচ দাবী উপস্থাপন  » «   গোলাপগঞ্জে ভোটার হাল নাগাদ শুরু  » «   বার্সেলোনায় মাদারীপুর সমিতির ঈদ পুনর্মিলনী  » «   প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের প্রশংসায় স্পেনের প্রেসিডেন্ট  » «   আব্দুল গাফ্ফার চৌধুরীর চিরবিদায়  » «   ইতালির জেনোভায়‌ প্রবাসীদের কনস্যুলেট সেবা প্রদান  » «   বিয়ানীবাজার থানা জনকল্যাণ সমিতি ইউকে‘র দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা ও সম্মেলন অনুষ্ঠিত  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন

আবুধাবিতে জাতির জনকের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন করা হয়েছে। বুধবার সকালে দূতাবাস প্রাঙ্গণে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে দিবসের কার্যক্রম শুরু হয়।

দিবসের মূল অনুষ্ঠানমালা হয় অপরাহ্নে। রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর দূতাবাসের অন্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে নিয়ে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করেন। এরপর আবুধাবিস্থ বাংলাদেশ মহিলা সমিতি, জনতা ব্যাংক, বাংলাদেশ স্কুল, বাংলাদেশ বিমান, বাংলাদেশ সমিতি, বঙ্গবন্ধু পরিষদসহ বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন করা হয়েছে। বুধবার সকালে দূতাবাস প্রাঙ্গণে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে দিবসের কার্যক্রম শুরু হয়।

দিবসের মূল অনুষ্ঠানমালা হয় অপরাহ্নে। রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর দূতাবাসের অন্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে নিয়ে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করেন। এরপর আবুধাবিস্থ বাংলাদেশ মহিলা সমিতি, জনতা ব্যাংক, বাংলাদেশ স্কুল, বাংলাদেশ বিমান, বাংলাদেশ সমিতি, বঙ্গবন্ধু পরিষদসহ বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। পরে শিশু-কিশোরদের সঙ্গে নিয়ে কেক কাটেন রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর ও তার সহধর্মিনী সালমা আহমেদ।

দিবস আয়োজনের প্রধান অংশ ছিল আবুধাবিস্থ বাংলাদেশ ইসলামিয়া স্কুলের শিশু-কিশোরদের অংশগ্রহণে বঙ্গবন্ধুর জীবনী আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। আলোচনা সভার শুরুতে তারা দিবসটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর পাঠানো বাণী পাঠ করে। এ সময় শিক্ষার্থীরা বঙ্গবন্ধুর শৈশব-কৈশর, কলকাতার জীবন, ভাষা ও স্বাধীকার আন্দোলনে তার অবদান এবং রাষ্ট্রনায়ক হিসেবে জাতির পিতার সাফল্য নিয়ে তথ্যবহুল বক্তব্য উপস্থাপন করে। তারা জাতির জনকের ওপর কবিতা আবৃত্তি ও দেশাত্ববোধক সঙ্গীত পরিবেশন করে।

রাষ্ট্রদূত মো. আবু জাফর তার বক্তব্যে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে শিশুদের প্রতি তার গভীর ভালবাসার কথা উল্লেখ করেন। তিনি জাতির পিতার বর্ণাঢ্য জীবনের বিভিন্ন দিক উপস্থাপন করে ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে তার মহান আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে দেশপ্রেমিক হিসেবে গড়ে তোলার জন্য অভিভাবকদের প্রতি আহ্বান জানান।

রাষ্ট্রদূত বলেন, ‘সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠার যে স্বপ্ন নিয়ে বঙ্গবন্ধু আজীবন সংগ্রাম করেছেন, তার যোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সে স্বপ্ন বাস্তবায়নের জন্যই কাজ করছেন।’ এ লক্ষ্যে রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়ন তথা উন্নত-সমৃদ্ধ বাংলাদেশ বিনির্মাণে তিনি সব প্রবাসীকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করার আহ্বান জানান।

এছাড়া দিবসটি ঘিরে ছিল দূতাবাস পরিবার ও আবুধাবিস্থ মহিলা সমিতির সদস্যদের উদ্যোগ পিঠা উৎসব। তারা বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী বিভিন্ন ধরণের পিঠা ও মিষ্টান্ন দিয়ে অংশগ্রহণকারী সবাইকে আপ্যায়ন করান।

পরে অংশগ্রহণকারীদের দূতাবাসের পক্ষ থেকে প্রশংসাপত্র ও স্থানীয় বঙ্গবন্ধু পরিষদের পক্ষ থেকে সৌজন্য পুরস্কার দেওয়া হয়। শেষে জাতির পিতা ও তার পরিবারের সদ্যস্যদের রুহের মাগফিরাত এবং দেশের সমৃদ্ধি ও উন্নয়ন কামনা করে বিশেষ দোয়া-মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন