শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
জীবন যেখানে দ্রোহের প্রতিশব্দ মৃত্যু সেখানেই শেষ কথা নয়..  » «   শিল্প উদ্যোক্তা ও ক্রীড়া সংগঠক মো: জিল্লুর রাহমানকে  লন্ডনে সংবর্ধনা  » «   ঈদের সামাজিক গুরুত্ব ও বিলাতে ঈদের ছুটি   » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি  প্রসঙ্গে  » «   হজের খুতবা বঙ্গানুবাদ করবেন মাওলানা শোয়াইব রশীদ ও মাওলানা খলিলুর রহমান  » «   হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু, তাবুর শহর মিনায় হাজিরা  » «   ঈদের ছুটি : আমাদের কমিউনিটিতে সবার আগে শুরু হোক  » «   ঈদের দিনে বিলেত প্রবাসীদের মনোবেদনা  » «   বিলেতে ঈদ উৎসব এবং বাঙ্গালী কমিউনিটির অন্তর্জ্বালা  » «   জলঢুপে বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমান কেম্প  » «   তিলপাড়ায় বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   করিমগঞ্জ দিবস  » «   ঈদের ছুটি চাই : একটি সমন্বিত উদ্যোগ অগণিত পরিবারে হাসি ফুটাতে পারে  » «   ট্রাক ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল তিন বন্ধুর  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


গোলাপঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা তাহের আলীর রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

গোলাপগঞ্জে (সিলেট) বীর মুক্তিযোদ্ধা তাহের আলী বীর বিক্রম এর রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন হয়েছে। বৃহস্পতিবার বাদ আসর উপজেলার ফুলবাড়ী কিসমত মাইজভাগে জানাজা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করা হয়। জানাযা পূর্বে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, উপজেলা প্রশাসন, গোলাপগঞ্জ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও থানা পুলিশের একটি চৌকশ দল রাষ্ট্রীয় সম্মান গার্ড অব অনার প্রদান করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন গোলাপগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ গোলাম কবির, সহকারী কমিশনার (ভূমি) অনুপমা দাস, উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা নুরুল হক, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব শফিকুর রহমান প্রমুখ।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টায় বার্ধক্যজনিত কারনে তিনি সিলেটের একটি বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে বয়স হয়েছেল ৭৬বছর। তিনি স্ত্রী, ১ছেলে ও ৩মেয়ে সহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

বীর বিক্রম অনারারী ক্যাপ্টেন তাহের আলী গোলাপগঞ্জ উপজেলার ফুলবাড়ী ইউনিয়নের মাইজভাগ গ্রামে ১৯৪৫ সালে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতা মরহুম মোঃ শেখ আবরু মিয়া ও মাতা হুছনে আরা বেগম।
১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে তাহের আলী ১নং সেক্টরের অধীনে ৮ম ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টে একজন হাবিলদার হিসেবে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেন। অনারারি ক্যাপ্টেন তাহের আলী (বীর বিক্রম) ১৯৭১ সালের এপ্রিল মাসে তৎকালীন মেজর মীর শওকত আলীর নেতৃত্বে ক্যাপ্টেন খালেকুজ্জামান চৌধুরী, শহীদ ক্যাপ্টেন আপ্তাব কাদের, ক্যাপ্টেন মাফুজ আহমদ, সুবেদার আব্দুল মোতালেব ও নায়েক সুবেদার খয়রুল আলমসহ প্রায় ৩‘শ সৈনিকের সাথে মুক্তিযুদ্ধের রণাঙ্গনে ঝাঁপিয়ে পড়েন। তিনি মহালছড়ি, বাঘছড়ি, বুড়িঘাটসহ পার্বত্য রাঙ্গামাটির বিভিন্ন রণাঙ্গনে সম্মুখ যুদ্ধে অংশ নেন। অনারারি ক্যাপ্টেন তাহের আলীকে মুক্তিযুদ্ধে বিশেষ অবদানের জন্য ১৯৭৩ সালে ‘বীর বিক্রম’ উপাধিতে ভূষিত হন।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন