শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ১৪ ফাল্গুন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
হবিগঞ্জের বানিয়াচং-নবীগঞ্জ রোডে গণ-ডাকাতি সংঘটিত  » «   মায়ের হত্যাকারীদের বিচারের দাবিতে ছেলের সংবাদ সম্মেলন  » «   গোলাপঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা তাহের আলীর রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন  » «   লেখক মুশতাকের মৃত্যু কারাগারে: প্রগতিশীল ছাত্র জোটের তাৎক্ষনিক প্রতিবাদ  » «   বিএনপির  ৭ই মার্চ পালনের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন সুলতান মনসুর  » «   নিউজ কনটেন্ট নিয়ে ফেসবুকের সমঝোতায় অস্ট্রেলিয়ার পার্লামেন্টে ঐতিহাসিক আইন পাশ  » «   চামচামির  রাজনীতি  এবং  ফেইসবুকে ভাড়া খাটা কর্মীরা  » «   বানিয়াচং আদর্শ বাজারে অগ্নিকান্ডে প্রায় ২০ লক্ষ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি  » «   ভালুকায় ইটভাটায় একপক্ষের বেলচার আঘাতে কলমাকান্দার জাহাঙ্গীর নিহত  » «   গোলাপগঞ্জে পৃথক অভিযানে গাঁজাসহ ৩ মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   বিয়ানীবাজার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট  ইউকের দোয়া ও আলোচনা অনুষ্ঠিত  » «   মাতৃভাষা দিবসে বার্সেলোনায়   স্থায়ী শহীদ মিনার স্থাপনের দাবী  » «   মহামারির কারণে ব্রিটেনে বেকারত্বের হার ৫ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ  » «   ইউরো বাংলা প্রেসক্লাব এর মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা  » «   শহীদ দিবসে জালালাবাদ এসোসিয়েশন ইতালীর দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত  » «  

বার্সেলোনার শহীদ মিনারটিকে রং দিয়ে ঝাপসা করে দিয়েছে দুষ্কৃতকারীরা



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ভাষার মাসে বার্সেলোনায় অবস্থিত একমাত্র শহীদ স্মৃতিফলককে(শহীদ মিনার) ঢেকে দেয়ার উদ্দেশ্যে রং লেপন করার অপচেষ্টা করেছে দুষ্কৃতকারী। ১৬ ফেব্রুয়ারী মঙ্গলবার শহরের প্লাসা পেদ্রোতে অবস্থিত শহীদ স্মৃতি ফলকটিকে কে বা কারা রঙ স্প্রে করে ঢেকে দেয়ার অপচেষ্টা করেছে। ভাষা শহীদদের উদ্দেশ্য করে লেখা শব্দমালাকে অস্পষ্ট করে দেয়ার উদ্দেশ্যে পরিকল্পনা করে এটা করা হয়েছে বলে ধারণা করছে স্থানীয় বাংলাদেশী কমিউনিটি।

মহান ভাষা দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের মাস হিসেবে ফেব্রুয়ারী মাসটি যেখানে গুরুত্বপূর্ণ এবং একুশের প্রহর আসার ঠিক ১ সপ্তাহ আগে পুর্বপরিকল্পিতভাবে এই অপচেষ্টা করা হয়েছে বলে মনে করছে বাঙ্গালী কমিউনিটি। সারা স্পেনের মধ্যে একমাত্র বার্সেলোনা শহরেই বাংলাদেশী কমিউনিটির বহু পরীশ্রমে মধ্যি দিয়ে জায়গা এবং এই স্মৃতিফলকটি বসানোর দাবী আদায় করেছে শহরের স্থানীয় প্রশাসনের কাছ থেকে। অমর একুশের কাছাকাছি সময়ে স্মৃতিসৌধের উপর এই রং দিয়ে কালিমা লেপনে স্থানীয় বাংলাদেশী কমিউনিটির মানুষ ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। এ নিয়ে কেউ কেউ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিয়ে দুঃখ প্রকাশ করে অপরাধীকে শাস্তির আওতায় আনার দাবি করেছেন এবং শহীদ স্মৃতি ফলকের ক্ষতিগ্রস্ত অংশটি আবারও মেরামতের অনুরোধ জানাচ্ছেন ।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •