বুধবার, ১০ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
জীবন যেখানে দ্রোহের প্রতিশব্দ মৃত্যু সেখানেই শেষ কথা নয়..  » «   শিল্প উদ্যোক্তা ও ক্রীড়া সংগঠক মো: জিল্লুর রাহমানকে  লন্ডনে সংবর্ধনা  » «   ঈদের সামাজিক গুরুত্ব ও বিলাতে ঈদের ছুটি   » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি  প্রসঙ্গে  » «   হজের খুতবা বঙ্গানুবাদ করবেন মাওলানা শোয়াইব রশীদ ও মাওলানা খলিলুর রহমান  » «   হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু, তাবুর শহর মিনায় হাজিরা  » «   ঈদের ছুটি : আমাদের কমিউনিটিতে সবার আগে শুরু হোক  » «   ঈদের দিনে বিলেত প্রবাসীদের মনোবেদনা  » «   বিলেতে ঈদ উৎসব এবং বাঙ্গালী কমিউনিটির অন্তর্জ্বালা  » «   জলঢুপে বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমান কেম্প  » «   তিলপাড়ায় বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   করিমগঞ্জ দিবস  » «   ঈদের ছুটি চাই : একটি সমন্বিত উদ্যোগ অগণিত পরিবারে হাসি ফুটাতে পারে  » «   ট্রাক ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল তিন বন্ধুর  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


লেবাননে তারেক রহমানের ৫৬তম জন্মদিন উদযাপন



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

লেবাননে কেক কাটার মধ্য দিয়ে পালন করা হয় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ৫৬তম জন্মবার্ষিকী। এ উপলক্ষে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি, অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠন লেবানন কেন্দ্রীয় কমিটির উদ্যোগে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের দীর্ঘায়ু ও সুস্বাস্থ্য কামনা করে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল এর আয়োজন করা হয়।

২২ নভেম্বর  রবিবার রাজধানী বৈরুতের   হামরা আল রাইতেম নামক স্থানে কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব মোল্লার বাসায় সংগঠনের সভাপতি  আব্দুল  আহাদ রহমানের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল কাইয়ুম ও আব্দুল হান্নান এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি  ছিলেন   লেবানন বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মো ভাসানী মোল্লা।  প্রধান বক্তা  ছিলেন সংগঠনের  সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব  মোল্লা।  বিশেষ বক্তা হিসাবে বক্তব্য রাখেন যুবদলের সহ দপ্তর সম্পাদক আসাদুল কবির।

এছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিতি  ছিলেন, সেচ্ছাসেবক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল হান্নান,আল বুরুজ শাখার সভাপতি জাহিদ সরকার,লেবানন কেন্দ্রীয় কমিটির  মহিলা দলের সভাপতি  রিতা আক্তার রিতু, হামরা বরধান শাখার সভাপতি নুরুল করিম, হাইছুল্লুম শাখার সভাপতি  জাবেদ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল হোসেন,  সৈফাত শাখার সভাপতি এস, কে শারফিন, সাধারণ সম্পাদক আবির হোসেন, কাওছার আহমেদ, লেবানন কেন্দ্রীয় কমিটির  মহিলা দলের সিনিয়র সহ সভাপতি মিনা বেগম, সাধারণ সম্পাদিকা রেহেনা পারভিন জান্নাত,যুগ্ম সাধারন সম্পাদিকা লতিফা আক্তার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদিকা রিতা আক্তার,   সাংগঠনিক সম্পাদিকা কলি খান,জোনাকি আক্তার,

বক্তব্য রাখেন, শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক হৃদয় খান, জুনি শাখার সাধারণ সম্পাদক রাফি সরকার, নাকাশ শাখার সভাপতি  ফারুক গাজী, এন্তেলিয়াস শাখার সভাপতি  পিন্ট মিয়া,মোকাল্লেস শাখার সভাপতি শফিক আহমদ, মঞ্চুরিয়া শাখার সভাপতি মাসুদ আহমদ, আলনাম শাখার  সভাপতি আবদুল হক  লেবানন শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক হৃদয় খান, লেবানন যুবদল কেন্দ্রীয় কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আবদুল করিম, সহ-সভাপতি আফজাল হোসেন, আনোয়ার হোসেন আকন, সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন।  এছাড়াও লেবানন  বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটি, যুবদল,সেচ্ছাসেবক দল,ও মহিলা দলের নেতৃবৃন্দ সহ সকল শাখা কমিটির  নেতা কর্মীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

লকডাউনে থাকা অবস্থায় ছোট্ট পরিসরে আয়োজিত অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত সহ দলীয় ও জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয়।

 

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী বিএনপির লেবানন  কেন্দ্রীয় কমিটির-সভাপতি আবদুল আহাদ রহমান  সকল প্রবাসীদের করোনাকালীন স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার অনুরোধ করে বলেন, করোনা মহামারীর মধ্যে যে সকল নেতাকর্মী অসহায় প্রবাসীদের পাশে ছায়ার মত দাড়িয়েছেন,তাদের প্রতি  আমদের অশেষ কৃতজ্ঞতা  ও বিশেষ ধন্যবাদ।তিনি সকল প্রবাসীদের এক ছাতার তলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে চলার এবং বাংলাদেশের নাম উজ্জ্বলভাবে তুলে ধরার আহ্বান করেন।

প্রধান অতিথি , লেবানন বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মো. ভাসানী মোল্লা বলেন,  ঐক্যবদ্ধ অগ্রগতির অমোঘ দাবি উৎপাদনের রাজনীতি এবং জনগণের গণতন্ত্র। এই কর্মসূচি নিয়ে একদিন গ্রামের পর গ্রামে ছুটে গেছেন বাংলাদেশের সফল রাষ্ট্রনায়ক জিয়াউর রহমান। তারই প্রদর্শিত পথে পা রাখলেন তারেক জিয়া এবং গণমানুষের প্রাণের ছোঁয়া পেয়ে তিনিও গণতন্ত্র ফেরাতে পারলে জনগণের স্বপ্ন তথা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার স্বপ্ন  বাস্তবায়ন করতে পারব।

প্রধান বক্তা লেবানন বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব মোল্লা বলেন, দু:খী মানুষের কাছে দাঁড়িয়েছেন। তারেক রহমান বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ও তৃণমূল পর্যায়ের কর্মীদের মাঝে সেতুবন্ধন তৈরী করতে তৃণমূল ইউনিয়ন প্রতিনিধি সম্মেলন করেছিলেন। এসব সম্মেলনে কর্মীরা দলীয় রাজনীতি ও সংগঠন সম্পর্কে মন খুলে কথা বলেছিলেন। এ সভাগুলোতে তারেক রহমান মূলত দলের গঠনতন্ত্র, উদ্দেশ্য ও ভবিষ্যত পরিকল্পন নিয়ে নেতাকর্মীদের সাথে দীর্ঘ মতবিনিময় করেছেন। কিন্তু তারেক রহমান সরাসরি রাজনীতিতে অংশগ্রহণ করার পর তার জনপ্রিয়তা ও জাতীয়তাবাদী শক্তির জাগরণে বিএনপি ও তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দেশী-বিদেশী ষড়যন্ত্র শুরু হয়। সেই ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে ২০০৭ সালের ১/১১ সৃষ্টি হয় এবং তারেক রহমানকে গ্রেফতার করে অমানষিক নির্যাতন করা হয়।

বিশেষ বক্তা  যুবদলের সহ দপ্তর সম্পাদক আসাদুল কবির বলেন,তারেক রহমানের অভাবনীয় জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়ে ওয়ান ইলেভেনের সরকার গভীর চক্রান্তের নীলনক্সার চক একেছিল। তার নির্মম বলি হন আধুনিক রাজনীতির এই আইডল। সেনা নিয়ন্ত্রিত সরকার তাকে গ্রেফতার করে নির্মম নির্যাতন করে। বর্তমান সরকার ক্ষমতায় এসে আরো অনেক মিথ্যা মামলায় জড়িত করেছে। এই অবৈধ বাকশালি সরকার অনেক চেষ্টা করেও একটি মামলা প্রমাণ করতে পারেনি।

লেবানন কেন্দ্রীয় কমিটির  মহিলা দলের সভাপতি  রিতা আক্তার রিতু বলেন, দেশের অসহায় মেহনতি মানুষের কল্যাণে যেমন কাজ করেছিলেন শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান। তেমনি তারেক রহমান গণমানুষের প্রাণের ছোঁয়া পেয়ে  গণতন্ত্র ফেরাতে পারলে জনগণের স্বপ্ন তথা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার স্বপ্ন  বাস্তবায়ন করতে পারব।

মিলাদ ও দোয়া পরিচালনা করেন ইয়াকুব  মোল্লা। দোয়াতে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানের সুস্বাস্থ্য, দীর্ঘায়ু এবং বিএনপির চেয়ারপার্সন দেশমাতা বেগম খালেদা জিয়ার সুস্থতা ও দীর্ঘায়ু কামনা করা হয়েছে।এছাড়াও লেবানন বিএনপ্রির সকল অঙ্গ সংগঠনের পক্ষ থেকে দেশবাসীর জন্যে সুস্বাস্থ্য ও শান্তি কামনা করে  বিশেষ দোয়া করা হয়েছে। তারেক রহমানের জন্মদিনের  কেক কাটার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানে সমাপ্তি  হয়।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন