শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
জীবন যেখানে দ্রোহের প্রতিশব্দ মৃত্যু সেখানেই শেষ কথা নয়..  » «   শিল্প উদ্যোক্তা ও ক্রীড়া সংগঠক মো: জিল্লুর রাহমানকে  লন্ডনে সংবর্ধনা  » «   ঈদের সামাজিক গুরুত্ব ও বিলাতে ঈদের ছুটি   » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি  প্রসঙ্গে  » «   হজের খুতবা বঙ্গানুবাদ করবেন মাওলানা শোয়াইব রশীদ ও মাওলানা খলিলুর রহমান  » «   হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু, তাবুর শহর মিনায় হাজিরা  » «   ঈদের ছুটি : আমাদের কমিউনিটিতে সবার আগে শুরু হোক  » «   ঈদের দিনে বিলেত প্রবাসীদের মনোবেদনা  » «   বিলেতে ঈদ উৎসব এবং বাঙ্গালী কমিউনিটির অন্তর্জ্বালা  » «   জলঢুপে বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমান কেম্প  » «   তিলপাড়ায় বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   করিমগঞ্জ দিবস  » «   ঈদের ছুটি চাই : একটি সমন্বিত উদ্যোগ অগণিত পরিবারে হাসি ফুটাতে পারে  » «   ট্রাক ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল তিন বন্ধুর  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


দ্বিতীয় ঢেউ সামলাতে স্পেনে রাষ্ট্রীয় সতর্কতা জারি
২০২১ সালের মে পর্যন্ত বর্ধিত হতে পারে



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

কোভিড ১৯ মহামারীর দ্বিতীয় ঢেউ সামলাতে স্পেনের সরকার দ্বিতীয়বারের মতো রাষ্ট্রীয় সতর্কতা জারি করেছে। আজ  ২৫ অক্টোবর, রবিবার  সকাল থেকে মন্ত্রীপরিষদের জরুরী বৈঠক শেষে দুপুরে এই সিদ্ধান্ত আসল।

এই রাষ্ট্রীয় সতর্কতা সামনের বছরের  অর্থাৎ ২০২১ সালের  মে মাস পর্যন্ত বর্ধিত হতে পারে, তবে সেটা ১৫ দিন পরপর কংগ্রেসের ভোটের মাধ্যমে অনুমোদিত হতে হবে।

এবারের রাষ্ট্রীয় সতর্কতা গত মার্চ মাসে বহাল করা প্রথম রাষ্ট্রীয় সতর্কতা থেকে কিছুটা আলাদা ও শিথিল হবে। মূলত স্পেনের বিভিন্ন প্রদেশগুলোতে প্রয়োজন অনুসারে লকডাউনের আওতায় আনার জন্যেই পুরো স্পেন জুড়ে রাষ্ট্রীয় সতর্কতা বলবৎ করাটা জরুরী হয়ে পড়ে। কারণ, রাষ্ট্রীয় সতর্কতা ছাড়া স্পেনের কোন অঞ্চলকে লকডাউনের আওতায় আনাটা স্পেনের সংবিধানে সংরক্ষিত আইনের বিরোধী।

বর্তমানে  রাষ্ট্রীয় সতর্কতা আনার কারণে স্পেনের যে কোন প্রদেশ নিজেদের জরুরী পরিস্থিতি বিবেচনা করে তাদের বিভিন্ন অঞ্চলকে লকডাউনের আওতায় আনতে পারবে।

সারা স্পেন জুড়ে আজ রাত ১১টা থেকে ভোর ৬টা পর্যন্ত কারফিউ বলবৎ থাকবে।

অর্থাৎ রাত ১১টা থেকে ভোর ৬টা পর্যন্ত কোন সুনির্দিষ্ট কারণ ও তার প্রমাণ ছাড়া বাইরে থাকলে পুলিশ তার উপর জরুরী আইন প্রয়োগ করবে। এ ক্ষেত্রে জরিমানা ৩০০ ইউরো থেকে ৬ হাজার ইউরো পর্যন্ত হতে পারে। তবে স্পেনের কোন প্রদেশ চাইলে তার প্রয়োজনীয়তার ওপর ভিত্তি করে সর্বোচ্চ রাত ১০টা থেকে সকাল ৭টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করতে পারবে। পরিস্থিতি বিবেচনায়  লকডাউনের পরিবর্তন হতে পারে জানানো হয়েছে।

তবে পর্যটন সমৃদ্ধ  কাতালোনিয়ায় কারফিউ শুরু হবার সময় রাত  ১০টা থেকে না ১১ টা থেকে শুরু হবে সেই ব্যাপারে এখনও সিদ্ধান্ত আসেনি। এছাড়াও কাতালোনিয়ার স্কুল-কলেজ বন্ধ করার ব্যাপারেও  প্রদেশিক সরকার এখনও সিদ্ধান্ত  দেয়নি।

জরুরী রাষ্ট্রীয় শতর্কতা চলাকালীন সময়ে স্পেনের এক প্রদেশ থেকে অন্য প্রদেশে ভ্রমণ করতে হলে সেটার সুনির্দিষ্ট কারণ ও প্রয়োজনিয়তা দেখিয়ে চলাচল করতে হবে। এ অবস্থায় ৬ জনের বেশি মানুষ একসাথে জড়ো হতে পারবে না।

 


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন