শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
জীবন যেখানে দ্রোহের প্রতিশব্দ মৃত্যু সেখানেই শেষ কথা নয়..  » «   শিল্প উদ্যোক্তা ও ক্রীড়া সংগঠক মো: জিল্লুর রাহমানকে  লন্ডনে সংবর্ধনা  » «   ঈদের সামাজিক গুরুত্ব ও বিলাতে ঈদের ছুটি   » «   ব্রিটেনে ঈদের ছুটি  প্রসঙ্গে  » «   হজের খুতবা বঙ্গানুবাদ করবেন মাওলানা শোয়াইব রশীদ ও মাওলানা খলিলুর রহমান  » «   হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু, তাবুর শহর মিনায় হাজিরা  » «   ঈদের ছুটি : আমাদের কমিউনিটিতে সবার আগে শুরু হোক  » «   ঈদের দিনে বিলেত প্রবাসীদের মনোবেদনা  » «   বিলেতে ঈদ উৎসব এবং বাঙ্গালী কমিউনিটির অন্তর্জ্বালা  » «   জলঢুপে বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমান কেম্প  » «   তিলপাড়ায় বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «   করিমগঞ্জ দিবস  » «   ঈদের ছুটি চাই : একটি সমন্বিত উদ্যোগ অগণিত পরিবারে হাসি ফুটাতে পারে  » «   ট্রাক ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল তিন বন্ধুর  » «   বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতালের বিনামূল্যে ভ্রাম্যমাণ মেডিকেল ক্যাম্প  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


ইতালীর করোনা পরিস্থিতির অবনতি: কঠোর অবস্থানে প্রশাসন



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

মহামারি করোনাভাইরাসের এই সংকটকালে ব্যবসায়ীদের কথা চিন্তা করে মানবাধিকারের দেশ ইতালীতে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলার অনুমতি দেয় সরকার। বিগত ৪মাস করোনা পরিস্থিতি কিছুটা শিথিলে আসলে খোলা রাখার অনুমতি পান ব্যবসায়ীরা। এ সময় বাধ্যতামূলক মাক্স ও সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতসহ বেশ কয়েকটি শর্ত দেয়া হয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলার ক্ষেত্রে।

কিন্তু মাত্র কয়েক মাসে ধীরে ধীরে পাল্টে যাচ্ছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের রূপ। করোনার ঝুঁকিতেও সামাজিক দূরত্ব না মেনে ব্যাবসা প্রতিষ্ঠানে ভিড় করছেন ক্রেতারা। আবার ব্যবসায়ীরাও সঠিক সুরক্ষার ব্যবস্থা রাখলেও মানছেননা ক্রেতারা। এতে বেড়ে যাচ্ছে করোনার ঝুঁকি। আর তাই আবারও বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইতালী প্রশাসন।

ইতিমধ্যে রাজধানী রোমের প্রাণ কেন্দ্র পিয়াচ্ছা ভিত্তোরিও সহ বাংলা অধ্যুষিত এলাকা তরপিনাত্তারায় বেশ কয়েকটি ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছে ইতালীয় প্রশাসন।এ অবস্থায় দেশটিতে জরুরী অবস্থা জারি করে ইতালীয় সেনাবাহিনী সহ স্পেশিয়াল পুলিশ, কেরাবিনেরি সহ প্রশাসনের বিভিন্ন বিভাগের সমন্বয়ে টিম গঠন করে মানুষকে সতর্কভাবে চলাফেরার জন্য মাঠে কাজ করার অনুমতি দিয়েছে সরকার।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন