সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
নিউইয়র্কে জালাল স্মৃতি ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত  » «   টানা বৃষ্ঠি আর পাহাড়ি ঢলে সিলেট বন্যার সম্ভাবনা  » «   ইতালিতে সড়ক দূর্ঘটনায় এক বাংলাদেশী যুবকের আশঙ্কাজনক অবস্থা  » «    ক্রিকেট ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন বড়লেখা উপজেলা শাখার নতুন কমিটি গঠিত  » «   হায়া সোফিয়া মসজিদ হবেই, কোনও চাপে নড়বেন না এরদোয়ান  » «   বিদেশে গমনকারী সকল বাংলাদেশিকে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে যেতে হবে  » «   দুবাইতে অনলাইনে পাওয়া যাবে কোরবানির পশু  » «   ১৫ জুলাই থেকে শারজাহ মিউনিসিপলিটির ভার্চুয়াল সেবা শুরু  » «   দুবাই থেকে পালিয়ে গিয়ে গ্রেপ্তার চট্টগ্রামের আজম খান  » «   সাবরিনাকে জিজ্ঞাসাবাদ: চেয়ারম্যান পদ অস্বীকার, দাম্পত্যে ফাটল  » «   বড়লেখায়  ইয়াং স্টার এসোসিয়েশনের লাইটিং কর্মসূচি  » «   হোয়াইচ্যাপেলে তিন তরুণের  উদ্যোগে  ফামোস ক্যাফে‘র যাত্রা  » «   করোনা নেগেটিভ সনদ এবং ভিনদেশে বাংলাদেশ  » «   সংযুক্ত আরব আমিরাতের ভিসা পরিষেবাগুলিতে ফি ও জরিমানা পুনরায় সক্রিয় হচ্ছে  » «   ইতালির প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য কয়েকটি বাংলাদেশি গণমাধ্যমে ভুলভাবে প্রকাশিত হয়েছে  » «  

স্পেনে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন



স্পেনে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করা হয়েছে। ২১ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সময় সকালে দূতাবাসে বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখার মাধ্যমে একুশের কর্মসূচি শুরু করেন দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার। পরে সকাল ১১টায় দূতাবাস মিলনায়তনে একুশের তাৎপর্য নিয়ে আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। মিশন উপপ্রধান ও মিনিষ্টার এম হারুণ আল রাশিদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন দূতাবাস কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম ও গীতা পাঠ করেন শ্যামল তালুকদার।

পরে বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বাণী পাঠ করে শুনান যথাক্রমে মিশন উপপ্রধান এম হারুণ আল রাশিদ, বাণিজ্যিক সচিব রেদোয়ান আহমেদ, প্রথম সচিব (শ্রম) মো. মোতাসিমুল ইসলাম ও দ্বিতীয় সচিব তাহসিনা আফরিন শারমিন।

একুশের আলোচনায় রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার তার বক্তব্যের প্রথমেই বায়ান্ন’র ভাষা আন্দোলনে সকল শহীদদের শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন। ভাষাকে মায়ের মতো দেখতে হবে উল্লেখ করে রাষ্ট্রদূত আরো বলেন, মাকে যেভাবে আমরা ভালোবাসি, সেভাবে বাংলা ভাষাকেও ভালোবাসলে আমাদের ভাষা সমুন্নত থাকবে। সবসময় বাংলা ভাষার চর্চ্চা চালিয়ে যেতে হবে।

রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশ বিশ্বে যে উন্নয়নের রুল মডেল হয়েছে, তার বড় একটা ভিত্তি, বড় বাহক হচ্ছে আমাদের ভাষা।রাষ্ট্রদূত বাংলাদেশ দূতাবাসের বিভিন্ন সেবার কথাও উপস্থিত প্রবাসীদের সামনে তুলে ধরেন।
আলোচনা সভায় বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেন এবং স্থানীয় আওয়ামী লীগ এর শীর্ষস্থানীয় নেতৃবৃন্দসহ উল্লেখযোগ্যসংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি উপস্থিত ছিলেন।

আলোচনা শেষে একুশে ফেব্রুয়ারির তাৎপর্য নিয়ে নির্মিত একটি প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়। সমস্বরে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়।