শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৫ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
https://blu-ray.world/ download movies
সর্বশেষ সংবাদ
বিয়ানীবাজার ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃক আঙ্গুরায় বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদান  » «   স্পেনে বিয়ানীবাজার পৌরসভা ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট বার্সেলোনা কমিটি গঠিত  » «   স্পেনে বাংলাদেশ কালচারাল ইয়ং ফেডারেশন কমিটি গঠিত  » «   গোলাপগঞ্জে সাংবাদিক জাহেদের উপর সন্ত্রাসী হামলা  » «   মাসা আমিনির মৃত্যুতে ইরানের ‘নীতি পুলিশ’ এখন আলোচনায়  » «   অনশনে বসতে আ’লীগ কার্যালয়ে ইডেন ছাত্রলীগের ১২ নেত্রী  » «   ইতালিতে জাঁকজমকপূর্ণভাবে বিএনপি’র ৪৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন  » «   ইতালির জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এমপি ও সিনেট পদপ্রার্থীদের রোমের বাংলাদেশী কমিউনিটির সাথে মতবিনিময়  » «   রানির প্রস্থান, রাজার আগমন এবং আধুনিক ব্রিটেন  » «   আন্তর্জাতিক হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় তৃতীয় বাংলাদেশি তাকরিম  » «   ফুটবলার আঁখির বাবার সঙ্গে অসদাচরণ, দুই পুলিশ ক্লোজড  » «   গোলাম কিবরিয়া  : সংগ্রামেই যিনি সাফল্যের উচ্চশিখরে  » «   ফুডেক্স সৌদি মেলায় বাংলাদেশি খাদ্য পন্য নিয়ে চার বৃহৎ কোম্পানি  » «   দশ বছর পর রোমে ইতালী আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত  » «   বিশ্বনেতারা রানির শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে যাবেন বাসে চড়ে  » «  
সাবস্ক্রাইব করুন
পেইজে লাইক দিন


ছেলেহারা মায়ের নিরাপদ সড়ক আন্দেলনে নিউইয়র্কে ‘আসিফ রহমান ওয়ে’



সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত বাংলাদেশি তরুণের নামে একটি সড়কের নামকরন করা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে নিহত আসিফের নামে ওই রাস্তার নামকরণ করা হয় ‘আসিফ রহমান ওয়ে’।৬ জুলাই শনিবার স্থানটিতে নামফলক স্থাপন করা হয়। বেসরকারিভাবে এটি স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ করে ‘ট্রান্সপোর্টেশন অলটারনেটিভ’।

১১ বছর আগে ২০০৮ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি কুইন্স বুলোভার্ডে তরুণ সাইকেল আরোহী আসিফ রহমানের সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হন।

নিউইয়র্ক প্রবাসী বাংলাদেশি কমিউনিটির জনপ্রিয় মুখ, লেখিকা ও সংস্কৃতিসেবী লিজি রহমান ও প্রয়াত শরিফুর রহমান বাচ্চুর জ্যেষ্ঠ সন্তান সংগীত শিল্পী আসিফ রহমান। সাইকেল ছিল তার প্রিয় বাহন। প্রতিদিন তিনি সাইকেলেই কর্মক্ষেত্রে যাওয়া-আসা করতেন।

সন্তানের অকাল মৃত্যুতে শোকে কাতর মা লিজি রহমান  নিরাপদ সড়ক আন্দোলন গড়ে তোলার এক অসাধারণ উদ্যোগ নেন। দিনের পর দিন তিনি অবস্থান নেন দুর্ঘটনাস্থলে। আসিফের ব্যবহৃত সাইকেলের আদলে স্থাপন করেন একটি প্রতীকী সাইকেল এবং দাবি জানান, কুইন্স বুলোভার্ডে একটি পৃথক ‘সাইকেল লেন’-এর। এ ব্যাপারে তিনি সহযোগিতা পান আসিফের সতীর্থ সাইকেল আরোহীদের। ক্রমে তার সমর্থনে এগিয়ে আসতে থাকেন জনপ্রতিনিধিরা।

এ ঘটনায় এগিয়ে আসেন উল্লেখযোগ্য সংখ্যক কাউন্সিলম্যান এবং মেয়র বিল ডিব্লাজিও স্বয়ং। পরে বেসরকারি উদ্যোগে স্থাপিত হয় ‘আসিফ রহমান ওয়ে’।

অনুষ্ঠানে লিজি রহমানের সঙ্গে তার মেয়ে মৌমিতা রহমান, ছেলে নাফিস রহমানও উপস্থিত ছিলেন। নাম ফলক স্থাপনের এই অনুষ্ঠানে আসিফের সতীর্থ একদল সাইক্লিস্ট কুইন্স বোরো প্লাজা থেকে সাইকেল চালিয়ে এসে যোগ দেয়।


সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন